দেশজুড়ে

মোহনপুরে অন্তঃসত্তা গৃহবধূকে হত্যা চেষ্টা মামলার আরেক আসামি গ্রেপ্তার

  • 27
    Shares

রিপন আলী, রাজশাহী ব্যুরো : রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার গোপালপুর গ্রামে জোর করে বাড়িতে প্রবেশের পর অন্তঃসত্তা এক গৃহবধূকে রশি দিয়ে হাত-পা বেঁধে হত্যা চেষ্টা মামলার আরেক আসামি জয়নাল আবেদীন (৩৮) আজ রোববার গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। তিনি ধুরইল হাটপাড়া গ্রামের কুড়ান মন্ডলের ছেলে।
ঘটনার দিন শুক্রবার (১ মে) গৃহবধূর শশুর বাদী হয়ে পাঁচজনকে আসামি করে মোহনপুর থানায় মামলা দায়ের করেন। ওইদিন পাঁচজন আসামির মধ্যে দুইজন আসামি বাবর আলী (৪০) স্ত্রী রিনা পারভিন (৩২), গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

মামলার তদন্তকারি অফিসার মোহনপুর থানার পুলিশের উপ- পরিদশক এস আই ফজলুল রহমান বলেন, উপজেলার মৌগাছি ইউনিয়নের গোপালপুর গ্রামের রফিকুল ইসলামের ছেলে মনিরুল ইসলামের সাথে প্রতিবেশী রইচ উদ্দিনের ছেলে বাবর আলীর দীর্ঘদিন ধরে পারিবারিক বিরোধ চলে আসছিল। ওই শুক্রতার জের ধরে শুক্রবার (১ মে) সকাল সাড়ে ৭ টার সময় প্রতিপক্ষ বাবর আলী (৪০), স্ত্রী রিনা পারভিন (৩২), মেয়ে সাথী আক্তার বর্ষা (২০), মা রাশেদা বেগম (৫৫) ও অজ্ঞাতনামা ২-৩ লোক নিয়ে জোর করে রফিকুল ইসলামের বাড়িতে প্রবেশ করে। ওই সময় গৃহবধূ মুন্নি আক্তার (২০) নিজ শয়ন রুমে ছিলেন। প্রতিপক্ষরা গৃহবধূ মুন্নি আক্তার (২০) প্রথম রশি দিয়ে হাত ও পা বেঁধে লোহার রড দিয়ে মারপিট করে হত্যার চেষ্টা করতে থাকে। ওই সময় গৃহবূর চিৎকারে আশে-পাশে লোকজন ছুটে আসেন আসামিরা পালিয়ে যায়। গৃহবধূ মুন্নি আক্তারের স্বামীর নাম মনিরুল ইসলাম।

মোহনপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোস্তাক আহম্মেদ জানান, মামলার পাঁচ আসামির মধ্যে ঘটনার দিন দুইজন আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। আজ রোববার আরেক আসামি জয়নাল আবেদীনকে গ্রেপ্তার করে জেল- হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।


  • 27
    Shares

Related Articles