সকাল ৯:৩১ বৃহস্পতিবার ২২শে আগস্ট, ২০১৯ ইং

ব্রেকিং নিউজ:

একদিনেই সৌদি আরব ছাড়লেন ১ হাজারের বেশি সৌদি নারী! | কিশোরকে অ'পহ'রণ করে ৪০ দিন যৌ'নদা'স হিসেবে ব্যবহার ৩৮ বছরের নারীর | কাতারে নিজেদের বিপদ নিজেরাই ডেকে আনছেন বাংলাদেশিরা | অল্পের জন্য বেঁচে গেলো তিন ক্রিকেটারের! | সরকারি জমি দখলকে ফৌজদারি কার্যবিধির অধীনে বিচারের আইন হচ্ছে: ভূমিমন্ত্রী | ইমরান খানের সঙ্গে দেখা করতে চান বিল গেটস | চীনের সঙ্গে যুদ্ধে কয়েক ঘণ্টায় পরাজিত হবে যুক্তরাষ্ট্র! | ভারতের সাবেক অর্থমন্ত্রী চিদম্বরম গ্রেপ্তার | রামপালে ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় নিহত শহীদদের স্বরনে শোক সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত | মানুষের শরীরে প্রতিস্থাপিত হবে শূকরের হার্ট ও কিডনি! |

ঈদের ছুটিতে পাকশীর জোড়া সেতু এলাকায় মানুষের ঢল

নিউজ ডেস্ক | তরঙ্গ নিউজ .কম
আপডেট : আগস্ট ১৫, ২০১৯ , ৪:১৭ অপরাহ্ণ
ক্যাটাগরি : রাজশাহী
পোস্টটি শেয়ার করুন

মামুনুর রহমান,পাবনা: পাবনার ঈশ্বরদীতে উল্লেখযোগ্য কোন বিনোদন কেন্দ্র না থাকায় ঈশ্বরদী ও এর আশেপাশের হাজার হাজার নারী-পুরুষ, কিশোর-কিশোরী ও শিশুরা ইট পাথরের পরিবেশ ছেড়ে প্রশান্তির আশায় দল বেঁধে ছুটে যায় রেল সেতু পাকশী হার্ডিঞ্জ ব্রিজ ও লালন শাহ সেতুর মাঝামাঝি প্রমত্তা পদ্মা নদীর পাড়ে। পবিত্র ঈদুল আযহা এর ছুটিতে পর্যটন নগরী প্রাচীনতম রেলওয়ে নৈসর্গিক শহর ঈশ্বরদীর পাকশী জোড়া সেতু এলাকায় বিনোদন প্রিয় হাজারো মানুষের ঢল নেমেছে। বিশাল আকৃতির দুটি সেতু পাশাপাশি স্থাপিত হওয়ায় এই এলাকায় অন্যধরনের এক পর্যটনকেন্দ্রের মত দৃষ্টি নন্দন পরিবেশ আর সুবিশাল এলাকাজুড়ে পদ্মা নদীর ফাঁকা স্থানে সময় কাটিয়ে প্রশান্তি খুঁজে পান মানুষ।

ঈদের দিন থেকে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ ঈদের আনন্দ উপভোগ করতে ছুটে আসছে পাকশীর জোড়া সেতু এলাকায়। পাকশীর আজাদ হোসেন, বিশেষ দিন মানেই হাজারো মানুষের প্রাণের মিলন মেলা বসে পর্যটন এলাকা খ্যাত পাকশীতে। এছাড়াও রেলওয়ে শহর পাকশীতে সুবিশাল এলাকা নিয়ে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে “পাকশী রিসোর্ট” নামের একটি অত্যাধুনিক বিনোদন কেন্দ্র। যেখানে বিনোদনের সকল সুযোগ-সুবিধা রয়েছে পর্যাপ্ত।

এই রিসোর্টে ঈদের দিন থেকেই হাজার হাজার মানুষ এসে ঈদের আনন্দ উপভোগ করছে। এই রিসোর্টটি পাকশীর সৌন্দর্যকে আরও এক ধাপ এগিয়ে নেয়ার পাশাপাশি ছুটি ও বিশেষ দিনে মানুষের বিনোদনের অন্যতম কেন্দ্রবিন্দু হয়ে উঠেছে। ঈদের এ সপ্তাহ পাকশীতে হাজারো মানুষের ঢল। সকাল বিকাল শুধু মানুষ আর মানুষ।এদিকে বৃষ্টি হলেও বসে নেই ভ্রমণ পিপাসু ব্যক্তিরা।

Comments

comments