জাতীয়

শিক্ষার্থীদের একটি বছর হারিয়ে যেতে পারে!

  • 10
    Shares

দেশে যেভাবে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ বেড়েই যাচ্ছে যাতে শিক্ষার্থীদের কাডেমিক ক্যালেন্ডার থেকে একটি বছর হারিয়ে যেতে পারে। জটিলতা সৃষ্টি হতে পারে শিক্ষা কার্যক্রমে।

পরিস্থিতির অনুকূলে না আসায় দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের মেয়াদ ৬ অগাস্ট পর্যন্ত বাড়িয়েছে সরকার। এই বন্ধের কারণে উচ্চ মাধ্যমিক (এইচএসসি) ও সমমানের পরীক্ষা নিয়ে অনিশ্চয়তাও বাড়ল।

সাধারণত এপ্রিল-মে মাসে এইচএসসি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হলে সেপ্টেম্বর নাগাদ বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি কার্যক্রম শুরু হয়ে যায়। কিন্তু এবারে পরীক্ষার্থীদের একাডেমিক ক্যালেন্ডার থেকে একটি বছর নিয়ে অনিশ্চয়তা তৈরি হয়েছে।

কবে নাগাদ এই পরীক্ষা হবে তা কেউ বলতে পারছে না। এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা বলছেন, সবকিছু নির্ভর করছে দেশের করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি কী হয় তার ওপরে।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. মাহবুব হোসেন বলেন, ‘ইন্টারমিডিয়েট পরীক্ষার্থীদের বিষয়টি নিয়ে আমাদের চিন্তাটা হলো পরিস্থিতির যখন উন্নতি হবে, স্বাভাবিকের দিকে আসবে, তখন আমর তারিখটা ঘোষণা করবো। তখন পরীক্ষাটা নেবো।’

আগাস্টের পর পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা করলে, পরীক্ষা অনুষ্ঠান ও ফলাফল প্রকাশ হতে হতে নভেম্বর-ডিসেম্বর মাস লেগে যেতে পারে। তার কিছুদিন পরে আরেকটি এইচএসসি পরীক্ষার সময় চলে আসবে। সেক্ষেত্রে কী করা হবে জানতে চাইলে তিনি বলেন, এখনি তারা এ বিষয়ে আগাম বলতে চান না।

মাহবুব হোসেন বলেন, ‘আমরা কিছু কন্টিনজেন্সি প্লান (সম্ভাব্য সব ঘটনার জন্য বিকল্প পরিকল্পনা) করে রেখেছি। পরীক্ষা কোন সময়ে নেবো, তার সঙ্গে ম্যাচ করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত হবে। পরিস্থিতি দেখে আমরা সিদ্ধান্ত নেবো।’

তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা জানান, ‘আপাতত সেপ্টেম্বর মাস নাগাদ এইচএসসি পরীক্ষা অনুষ্ঠানের কথা বিবেচনা করা হচ্ছে। কিন্তু চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নির্ভর করবে তখন করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি কতোটা নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয় তার ওপরে।


  • 10
    Shares

Related Articles