সকাল ৮:৩২ বৃহস্পতিবার ২২শে আগস্ট, ২০১৯ ইং

ব্রেকিং নিউজ:

একদিনেই সৌদি আরব ছাড়লেন ১ হাজারের বেশি সৌদি নারী! | কিশোরকে অ'পহ'রণ করে ৪০ দিন যৌ'নদা'স হিসেবে ব্যবহার ৩৮ বছরের নারীর | কাতারে নিজেদের বিপদ নিজেরাই ডেকে আনছেন বাংলাদেশিরা | অল্পের জন্য বেঁচে গেলো তিন ক্রিকেটারের! | সরকারি জমি দখলকে ফৌজদারি কার্যবিধির অধীনে বিচারের আইন হচ্ছে: ভূমিমন্ত্রী | ইমরান খানের সঙ্গে দেখা করতে চান বিল গেটস | চীনের সঙ্গে যুদ্ধে কয়েক ঘণ্টায় পরাজিত হবে যুক্তরাষ্ট্র! | ভারতের সাবেক অর্থমন্ত্রী চিদম্বরম গ্রেপ্তার | রামপালে ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় নিহত শহীদদের স্বরনে শোক সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত | মানুষের শরীরে প্রতিস্থাপিত হবে শূকরের হার্ট ও কিডনি! |

ট্রেন্ট ব্রিজ টেস্ট দক্ষিণ আফ্রিকার নিয়ন্ত্রণে

নিউজ ডেস্ক | তরঙ্গ নিউজ .কম
আপডেট : জুলাই ১৬, ২০১৭ , ৪:১১ পূর্বাহ্ণ
ক্যাটাগরি : খেলাধুলা
পোস্টটি শেয়ার করুন

বোলারদের দাপটে ট্রেন্ট ব্রিজ টেস্টের দ্বিতীয় দিনটা নিজেদের করে নিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। সিরিজের দ্বিতীয় এই টেস্টের নিয়ন্ত্রণও এখন প্রোটিয়াদের হাতেই।

শনিবার দ্বিতীয় দিনের খেলা শেষে দ্বিতীয় ইনিংসে দক্ষিণ আফ্রিকার সংগ্রহ ১ উইকেটে ৭৫ রান। প্রথম ইনিংসের ১৩০ রানসহ দক্ষিণ আফ্রিকার লিড এখন ২০৫। ডিন এলগার ৩৮ ও হাশিম আমলা ২৩ রানে অপরাজিত আছেন।

প্রথম ইনিংসে পাঁচ উইকেট নেওয়া জেসম অ্যান্ডারসন দ্বিতীয় ইনিংসে একমাত্র উইকেটটা নিয়েছেন। তার বলে স্লিপে জো রুটকে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন হেইনো কুন (৮)। এরপর ৫৭ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটিতে দিনের খেলা শেষ করেন এলগার ও আমলা।

দ্বিতীয় দিনের সকালে দক্ষিণ আফ্রিকাকে দ্রুত ৩৩৫ রানে গুটিয়ে দেওয়ার পর শুরুতেই জোড়া ধাক্কা খায় ইংল্যান্ড। প্রথম পাঁচ ওভারের মধ্যেই তারা দুই ওপেনারকে হারায় পরপর দুই বলে। চতুর্থ ওভারের শেষ বলে অ্যালিস্টার কুককে ডি ককের ক্যাচ বানিয়েছেন ভারনন ফিল্যান্ডার। পরের ওভারের প্রথম বলে কেটন জেনিংসকে ফিরিয়েছেন আরেক পেসার মরনে মরকেল।

কুক করেছেন ৩, জেনিংস মেরেছেন ডাক। গত এক যুগে এই প্রথম কোনো টেস্ট ইনিংসে ইংলিশ ওপেনাররা মিলে এত কম রান করলেন। সর্বশেষ ২০০৫ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে ফয়সালাবাদে দুই ওপেনারই ডাক মেরেছিলেন।

এরপর গ্যারি ব্যালান্সকে সঙ্গে নিয়ে অধিনায়ক রুটের পাল্টা আক্রমণে জোড়া ধাক্কাটা ভালোই সামলে উঠেছিল ইংল্যান্ড। আক্রমণাত্মক ব্যাটিংয়ে রুট ফিফটি পূর্ণ করেন মাত্র ৪০ বলে। ব্যালান্সের বিদায়ে ভাঙে ৮৩ রানের তৃতীয় উইকেট জুটি। ২৭ রান করে ফিল্যান্ডারের বলে বোল্ড হয়ে ফেরেন ব্যালান্স।

চতুর্থ উইকেটে জনি বেয়ারস্টোকে নিয়ে ৫৭ রানের আরেকটি ভালো জুটি গড়েছিলেন রুট। কিন্তু অধিনায়কের বিদায়ের পরই আবার পথ হারায় স্বাগতিকরা। ৩ উইকেটে ১৪৩ থেকে দ্রুতই ইংলিশদের সংগ্রহ দাঁড়ায় ৬ উইকেটে ১৭৭!

রুটকে (৭৮) ডি ককের ক্যাচ বানিয়েছেন মরকেল। আর স্পিনার কেশব মহারাজ তার তিন ওভারের মধ্যে ফিরিয়েছেন বেন স্টোকস (০) ও বেয়ারস্টোকে (৪৫)।

৬ উইকেটে ১৮৪ রান নিয়ে চা বিরতিতে গিয়েছিল ইংল্যান্ড। বিরতির পর দলকে এগিয়ে নিচ্ছিলেন মঈন আলী ও লিয়াম ডসন। কিন্তু ২২ রানের এ জুটি ভাঙার পরই ধসে পড়ে ইংল্যান্ডের টেল-এন্ডার।

পরপর দুই বলে মঈন (১৮) ও স্টুয়ার্ট ব্রডকে ফিরিয়ে হ্যাটট্রিকের সম্ভাবনা জাগিয়েছিলেন ক্রিস মরিস। তার হ্যাটাট্রিক না হলেও পরের ওভারে ডসনকে ফেরান মহারাজ। ইংল্যান্ড ১৯৯ রানে দাঁড়িয়েই হারিয়েছে এই ৩ উইকেট! আর শেষ ব্যাটসম্যান হিসেবে মার্ক উড ফিরেছেন মরিসের বলে ডু প্লেসিকে ক্যাচ দিয়ে।

মরিস ও মহারাজ ৩টি করে উইকেট নিয়েছেন। ফিল্যান্ডার ও মরকেলের ঝুলিতে জমা পড়ে ২টি করে উইকেট।

এর আগে ৬ উইকেটে ৩০৯ রান নিয়ে দ্বিতীয় দিন শুরু করেছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। কিন্তু ২৬ রানে শেষ ৪ উইকেট হারিয়ে ৩৩৫ রানেই অলআউট হয়ে যায় সফরকারীরা।

Comments

comments