দেশজুড়ে

সাদুল্লাপুরে করোনা রোগীকে আইসোলেশনে আনতে ব্যর্থ পুলিশ ও স্বাস্থ্যকর্মীরা

  • 100
    Shares

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধা: গাইবান্ধার সাদুল্লাপুর উপজেলায় করোনা আক্রান্ত এক রোগীকে সাড়ে ৩ ঘন্টা চেষ্টা করেও চিকিৎসার জন্য আইসোলেশন সেন্টারে নিয়ে আসতে ব্যর্থ হয়েছে পুলিশ ও স্বাস্থ্য বিভাগের লোকজন। ফলে উপজেলাজুড়ে করোনা আতংক ছড়িয়ে পড়েছে। গত শনিবার দিবাগত রাতে উপজেলার ফরিদপুর ইউনিয়নের নয়নপুর গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

করোনা আক্রান্ত রোগী এমদাদুল হক (৩৫) ওই গ্রামের রফিজ উদ্দিনের ছেলে ও নারায়নগঞ্জের একটি পোষাক কারখানার কর্মী। তিনি গত ১০-১২ দিন আগে নারায়ণগঞ্জ থেকে বাড়ীতে ফিরেছেন।

সাদুল্লাপুর থানার ওসি মো. মাসুদ রানা জানান, শনিবার দিবাগত রাত ৯ টার দিকে এমদাদুলকে আইসোলেশনে নিয়ে আসার জন্য পুলিশ ও স্বাস্থ্য বিভাগের লোকজন তার বাড়ীতে যায়। কিন্তু তিনি আসতে অপারগতা প্রকাশ করে স্বাস্থ্য বিভাগের লোকজন ও পুলিশকে গালিগালাজ করে। তিনি আরও জানান, রাত সাড়ে ১২টা পর্যন্ত চেষ্টা করেও তাকে আইসোলেশনে নিয়ে আসার জন্য স্বাস্থ্য বিভাগের এ্যাম্বুলেন্সে উঠানো সম্ভব হয় নাই।

সাদুল্লাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পা কর্মকর্তা ডা. মো. শাহীনুল ইসলাম মন্ডল জানান, গত ৩ জুন এমদাদুল হকের নমুনা সংগ্রহ করে রংপুর পিসিআর ল্যাবে পাঠিয়ে দেয়া হয়। গত ৬ জুন রির্পোট আসে তার করোনা পজেটিভ। তিনি আরও জানান, করোন আক্রান্ত ওই রোগী (এমদাদুল) তাদেরকে জানান তিনি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হন নাই। এই পরীক্ষা ভুয়া। তিনি ঢাকা গিয়ে আবারো নতুন করে পরীক্ষা ও চিকিৎসা করাবেন। বিষয়টি সিভিল সার্জনকে জানানো হয়েছে।

৭ জুন রবিবার সন্ধ্যায় ওই এলাকার ফরিদপুর ইউনিয়নের নয়নপুর গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য মিলন মিয়া জানান, এমদাদুল হক বাড়ীতে অবস্থান করে স্বাভাবিক মানুষের মত চলাফেরা করছে। এতে এলাকায় করোনা আতংক ছড়িছে পড়েছে।


  • 100
    Shares

এই বিভাগের আরও খবর পড়ুন

Back to top button