রাজনীতি

খালেদা জিয়াকে চিকিৎসার জন্য বিদেশে নেয়া সম্ভব যে প্রক্রিয়ায়

  • 13
    Shares

বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়াকে চিকিৎসার জন্য বিদেশে নিতে চাইছে তাঁর পরিবার ও দল। কিন্তু যে আদেশ বলে তিনি জেল থেকে বের হয়েছিলেন সে অনুযায়ী তাঁর বিদেশে যাওয়ার সুযোগই নেই।

কারণ যে নির্বাহী আদেশে খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিয়েছিলো সরকার তার শর্তই হলো তিনি বিদেশে যেতে বা বিদেশি চিকিৎসা নিতে পারবেন না।

কিন্তু আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলছেন, সরকার সেই শর্তটি শিথিল করলে খালেদা জিয়ার বিদেশে যেতে আইনগত কোন বাধা থাকে না। এটা নির্ভর করছে একেবারেই সরকারের সিদ্ধান্তের ওপর।

কিন্তু এখনো তারা বিএনপি বা খালেদা জিয়ার পরিবারের তরফ থেকে এরকম কোন আবেদন পাননি,  বলেন আইনমন্ত্রী।

করোনাভাইরাস আক্রান্ত খালেদা জিয়া গত ২৮শে এপ্রিল ধরে ঢাকার এভারকেয়ার হাসপাতালে ভর্তি। শ্বাসকষ্টের কারণে সোমবার তাকে সিসিইউতে (করোনারি কেয়ার ইউনিট) স্থানান্তর করা হয়।

রাতেই তাকে চিকিৎসার জন্য বিদেশে নেয়ার বিষয়ে সরকারের সঙ্গে যোগাযোগ করে বলে জানাচ্ছে বিএনপি।

মি. আলমগীর  বলেছেন, খালেদা জিয়ার অবস্থা এখন স্থিতিশীল। তাঁর চিকিৎসা নিয়ে এখন ডাক্তারেরা যা বলেন সেই অনুযায়ী এগোনো হবে।

দলের নেতারা বলছেন, সরকারের কাছে খালেদা জিয়াকে বিদেশে নেয়ার জন্য অনুমতি চেয়ে একটি আবেদন আগেই করা আছে।

বিএনপি চেয়ারপার্সনের আইনজীবীদের একজন ও দলটির যুগ্ম মহাসচিব মাহবুব উদ্দিন খোকন বলছেন, “ম্যাডামকে বিদেশে চিকিৎসার জন্য নেয়া জরুরি। এখন উপায় একটিই তাহলে সরকারকে তার দেয়া নির্বাহী আদেশ সংশোধন করে বিদেশে যাওয়ার ওপর বিধিনিষেধ প্রত্যাহার করা”।

“এখন বিদেশে পাঠাতে হলে আর তো কোন অপশন নাই। এভাবে দল বা পরিবার বা আইনজীবীদের তো করণীয় কিছু নেই। নির্বাহী আদেশ সংশোধন করলেই তাকে বিদেশে নেয়া সম্ভব হবে,” বলছিলেন তিনি।

তিনি বলেন সরকার তো সাম্প্রতিক সময়ে অনেককে সাজা থেকে ক্ষমাও করে দিয়েছে।

“সেখানে খালেদা জিয়া সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও দেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় রাজনীতিক। তাকে বিদেশে চিকিৎসার জন্য যেতে দিতে সমস্যা কোথায়”। বিবিসি


  • 13
    Shares

Related Articles