খেলাধুলা

রোহিতকে হুমকি দিয়েছিলেন যুবরাজ!

ভারতের অন্যতম সেরা দুই ক্রিকেটার রোহিত শর্মা ও যুবরাজ সিং।  মাঠে ও মাঠের বাইরে দু’জায়গাতেই তাদের সম্পর্ক বেশ ভালো।  সতীর্থ ছাড়াও তাদের মধ্যে রয়েছে আরেকটি সুন্দর সম্পর্ক।  যুবরাজকে রাখি পরিয়েছিলেন রোহিতের স্ত্রী রিতিকা শাজদে।  মজার ছলে, রোহিতকে বোন জামাই বলেও ডেকে থাকেন যুবরাজ।

রিতিকার সঙ্গে অবশ্য রোহিতের প্রথম পরিচয় ঘটেছিল এই যুবরাজের মাধ্যমেই।  তবে মজার ব্যাপার, সে সময় এই রিতিকার দিকে না তাকাতে রোহিতকে হুমকিও দিয়েছিলেন ভারতের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার যুবরাজ! এক সাক্ষাৎকারে এমনটা জানিয়েছেন ওয়ানডেতে তিনটি ডাবল সেঞ্চুরি মালিক রোহিত নিজেই।

এ প্রসঙ্গে রোহিতের ভাষ্য, ‘একটা শুটিংয়ে গিয়েছিলাম।  সেখানে আমার সঙ্গে যুবরাজ আর ইরফানও ছিল।  রিতিকাও সেই শুটিংয়ে হাজির ছিল, পরিচালককে সাহায্য করছিল।  সেখানেই তার সঙ্গে আমার প্রথম দেখা।  এর কিছুক্ষন পর সিনিয়র ক্রিকেটার যুবরাজের সঙ্গে দেখা হয়।  পরবর্তীতে তিনি রিতিকাকে দেখিয়ে বলেন, ও আমার বোন।  ওর দিকে তাকাবে না। ’

যুবরাজের এমন হুমকিতে রেগে গিয়েছিলেন রোহিত, ‘সারাক্ষণ আমি রিতিকার দিকে রাগতভাবে তাকিয়েছিলাম।  ভাবছিলাম, মেয়েটা কে? শুটিং ভালোভাবেই শেষ হয়।  কিন্তু এরপরেই পরিচালক এসে বলেন, মাইক বন্ধ ছিল বলে আমার কোনো কথাই রেকর্ড করা যায়নি।  আমি রেগে গিয়ে চলে যাচ্ছিলাম।  সেই সময় রিতিকা এসে আমার সঙ্গে কথা বলে পরিস্থিতি সামাল দেয়। ’

রোহিত-রিতিকার প্রথম আলাপ সেদিনই।  এরপর ধীরে ধীরে আলাপটা রুপ নেয় বন্ধুত্বে।  তারপর প্রেম।  শেষ পর্যন্ত ২০১৫ সালে সাত পাকে বাঁধা পড়েন রোহিত-রিতিকা।  এখন তারা সুখে সংসার করছেন।  ক’দিন আগেই তাদের বিয়ের দুই বছর পূর্ণ হয়।

দ্বিতীয় বিবাহবার্ষিকীর দিন শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ভারতের অধিনায়ক হয়ে মাঠে নেমেছিলেন রোহিত।  সেদিন গ্যালারিতে উপস্থিত ছিলেন রিতিকাও।  ডাবল সেঞ্চুরির মাধ্যমে বিশেষ দিনটিকে স্মরণীয় করে রেখেছেন রোহিত।  এর চেয়ে ভালো উপহার রিতিকার জন্য বোধ হয় আর হতে পারতো না।

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.