শ্রীনগরের আটপাড়ায় সুবিধাভোগীর নামের তালিকা প্রস্তুতে অনিয়মের অভিযোগ

0
27

শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি: শ্রীনগর উপজেলার আটপাড়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার (নগদ অর্থ) প্রদানের নামের তালিকা প্রস্তুতে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে ইউপি সদস্য আব্দুর রহিমের বিরুদ্ধে। এমনই অভিযোগ করেছেন ইউনিয়নের পূর্ব দেউলভোগ গ্রামের কর্মহীনরা প্রায় ২৫টি পরিবার। এনিয়ে গত শুক্রবার সন্ধ্যার দিকে সুবিধাভোগীর নামের তালিকা দেখাকে কেন্দ্র করে স্থানীয় কর্মহীনদের সাথে স্থানীয় মেম্বারের কথা কাটাকাটি ও উত্তেজনা হয়েছে বলে জানা যায়।

রোববার বিকালে পূর্ব দেউলভোগ গ্রামের অটো চালক দেলোয়ার (৫৫), বাবুল হোসেন (৫৫), শাহাবুদ্দিন (৬০), আলেক (৩২), নজরুলসহ অনেকেই বলেন, করোনার প্রভাবে আমরা বেকার হয়ে পরেছি। অটো চালিয়ে সংসার চলত। করোনা রোধে অটো সব বন্ধ। দেশের এই ক্রান্তিকালে পরিবার পরিজন নিয়ে কষ্টে জীবন যাপন করছি। এই পর্যন্ত আমরা স্থানীয় মেম্বার আব্দুর রহিমের মাধ্যমে সরকারিভাবে ১০ কেজি করে চাল পেয়েছি। এছাড়া অন্য ব্যক্তি উদ্যোগে দুই একজনের ত্রাণ পেলেও সংসারের চাহিদা অনুসারে খুবই সামান্য। শুনছি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে অসহায়দের ঈদ উপহার বাবদ নগদ টাকা দেওয়া হবে।

এবিষয়ে মেম্বার আব্দুর রহমানের কাছে আমাদের নাম অর্ন্তভুক্ত করার জন্য তাগিদ দিলে তিনি আইডি কার্ড নেয়। এখন শুনতে পাই এই ওয়ার্ড থেকে ৫০ জনকে তালিকাভুক্ত করা হয়েছে। এখানে আমাদের নাম নেই। তালিকায় একাধিক সবল ও প্রবাসির পরিবারকে অন্তভুক্ত করা হয়ে। এবিষয়ে জানতে তার কাছে নামের তালিকা দেখতে চাইলে তিনি ক্ষিপ্ত হন বলে জানান তারা। সুবিধাভোগীর নামের তালিকায় প্রকৃত অসহায় ও কর্মহারা পরিবারগুলো যাতে এই সহায়তার আওতাভুক্ত হন এবিষয়ে সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করেন তারা।

স্থানীয় যুবলীগ সভপতি আল আমিন বলেন, এই তালিকায় আমার নামও রাখা হয়েছিল। আমি নিজেই মেম্বারকে নাম বাদ দিতে বলে আসি। তিনি আরো বলেন, যারা অসহায় এই অনুদান তাদেরই প্রাপ্প। স্থানীয় মুদি দোকানী নূর ইসলাম বলেন, নামের তালিকায় অনেক সবল পরিবারকেও অর্šÍভুক্ত করা হয়েছে শুনেছি। এবিষয়ে মেম্বার আব্দুর রহিমের সাথে আমারও কিছু কথা কাটাকাটি হয়েছে। আটপাড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও সাবেক ইউপি সদস্য মো. বিল্লাল হোসেন জানান, এবিষয়ে কর্মহীন অনেকেই আমার কাছে এসেছিল। তাদের অনুরোধে ইউপি সদস্য আব্দুর রহমানের কাছে নামের তালিকার বিষয়ে জানতে চেয়েছিলাম। তিনি এই বিষয়ে কোনও কিছু বলতে চাননি।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুর রহিমের কাছে এবিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, তারা আমার সাথে খারাপ ব্যবহার করেছে, তাই তাদেরকে নামের তালিকা দেখাই নাই। সুবিধাভোগীর নামের তালিকায় সবলদের অর্ন্তভুক্ত করার বিষয়ে প্রশ্ন করলে তিনি কোনও সুদত্তর দেননি।

আটপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ আইয়ুব খানের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, নিদিষ্ট ব্যক্তিদের মাধ্যমেই নামের তালিকা করা হয়েছে। যেহুতু তালিকা প্রস্তুতে অভিযোগ উঠেছে সে ক্ষেত্রে যাচাই বাছাই করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।