পলাশবাড়ীতে ৩ সন্তানের জনক কর্তৃক গৃহবধু ধর্ষণ

0
118

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল, গাইবান্ধা: গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে ৩ সন্তানের জনক কর্তৃক গৃহবধুকে ধর্ষণ থানায় অভিযোগ দায়ের। জানা যায়, পলাশবাড়ী পৌসভার সিধনগ্রামের আব্দুল গণির ছেলে ৩ সন্তানের জনক ধর্ষক মাহাবুর-কে সাথে নিয়ে ধর্ষিতার স্বামী মমিন মিয়া গতকাল সোমবার মোটর সাইকেল যোগে ধর্ষিতার নানার বাড়ী রাজাবিরাট স্ত্রীকে আনতে যায়।

মমিন মিয়া তার নানা শ্বশুরের বাড়ীতে না গিয়ে বাড়ী থেকে কিছু দুরে চায়ের দোকানে বসে থাকে। ধর্ষক মাহাবুর সুযোগ বুঝে সরাসরি ধর্ষিতাকে নিয়ে মমিনকে রেখেই তার বাড়ীর উদ্দেশ্যে রওনা হয়। পথিমধ্যে পৌরসভার হিজলগাড়ী গ্রামের জনৈক সুমন মন্ডলের ইটভাটার সন্নিকটে বাঁশঝাড়ে নিয়ে গিয়ে উক্ত গৃহবধুকে তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে ভয়ভীতি দেখিয়ে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে।

ধর্ষণ শেষে কাউকে কিছু না জানানোর জন্য ধর্ষিতাকে নানা প্রকার ভয়ভীতি দেখিয়ে রাত অনুমান ১১টার দিকে তার স্বামীর বাড়ীতে রেখে পালিয়ে যায়। পরে ধর্ষিতার স্বামী মমিন মিয়া বাড়ীতে আসলে তার স্ত্রী তাকে ধর্ষণের কথা জানায়। এরপর বিষয়টি মমিন সমাজের গণ্যমান্য ব্যক্তিদেরকে অবগত করলে তাদের পরামর্শে ১৮ আগস্ট মঙ্গলবার সকালে এব্যাপারে পলাশবাড়ী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

পলাশবাড়ী থানা পুলিশ ধর্ষিতার পরীক্ষার জন্য গাইবান্ধা আধুনিক সদর হাসপাতলে প্রেরণ করেন। বিষয়টি নিয়ে এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। উল্লেখ্য, ধর্ষক মাহাবুর এলাকায় একাধিকবার ধর্ষণের ঘটনা ঘটিয়েছে বলে স্থানীয়রা জানান ।