রাজশাহী

পুঠিয়ায় মারপিটের ঘটনায় তিন শিক্ষকসহ আট জনের জেল

পুঠিয়া প্রতিনিধিঃ পুঠিয়ায় মারপিটের ঘটনায় তিন শিক্ষকসহ আট জনের জেল দিয়েছে আদালত। বুধবার দুপুরের রাজশাহীর চিপজুডিশিয়্যাল ম্যাজিস্টেড আদালতে বিচারক মেহদী হাসান এ আদেশ দেন। দন্ড প্রাপ্তরা হলেন, উপজেলার ভালুকগাছী ইউনিয়নের বড় রাঙ্গামটি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক অচিন্ত কুমার প্রাং, শিলমাড়িয়া ইউনিয়নের কাশিয়াপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক রতন কুমার প্রাং ও শক্তিপাড়া সরকারী প্রথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক রথিন্দ্রনাথ মন্ডল।

এছাড়াও বিলাশ কুমার সরকার, পলাশ কুমার সরকার, ধনঞ্জয় কুমরা সরকার, রতন কুমার সরকার ও কিশোরী মহন সরকার। এদের মধ্যে শিক্ষক অচিন্ত কুমার প্রাংকে ৩ বছর ও বাঁকী সকলকে ৩ মাসে জেল দিয়েছে আদালত। এ বিষয়ে দন্ড প্রাপ্ত রথিন্দ্রনাথে বাবা প্রাক্তন প্রধান শিক্ষক নিরেন্দ্র নাথ মন্ডল জানান, আগামী রবিবার উচ্চ আদালতে এ রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করবেন তিনি।

উল্লেখ্য গত ২০১৪ সালের ২১ সেপ্টেম্বর তারিখে রাত্রি আনুমানিক সাড়ে আটায় মামলার বাদি গ্রাম্য ডাক্তার গৌতম কুমার প্রাং ও তার তিন ভাই উপজেলার শিলমাড়িয়া ইউনিয়নের কার্তিক পাড়া বাজার থেকে বাড়ি ফিরার পথে নিবারনের বাড়ির কাছে পৌছালে উক্ত আসামীগণ তাদের ধারালো অস্ত্র ও লাঠি সোটা দিয়ে মারপিট করে গুরুত্বর আহত করে তাদের কাছে থাকা টাকা পয়সা কেড়ে নিয়ে পালিয়ে যায়। পরে গৌতম কুমার বাদি হয়ে পুঠিয়া থানায় মামলা দায়ের করেন।

Comments

comments