দেশজুড়ে

রামেক হাসপাতালে করোনা ও উপসর্গে ছয়জনের মৃত্যু

  • 3
    Shares

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ছয়জন মারা গেছেন। এদের মধ্যে দুইজন করোনা রোগী। আর চারজন করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন। মৃত্যুর আগে এই চারজনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়নি। তবে মৃত্যুর পর পরীক্ষার জন্য মরদেহ থেকে নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে।

মারা যাওয়া দুই কোভিড-১৯ রোগী হলেন- রাজশাহী মহানগরীর হেতেমখাঁ এলাকার রফিকুল ইসলামের স্ত্রী নুসরাত সুলতানা নূরী (৩২) এবং পাবনা সদর উপজেলার রামনগর গ্রামের মৃত আবদুল কুদ্দুসের ছেলে লিয়াকত আলী (৬০)। মৃত্যুর আগে নমুনা পরীক্ষায় তাদের করোনা শনাক্ত হয়েছিল।

করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা যাওয়া চারজন হলেন- পাবনা সদর উপজেলার শালগাড়ি গ্রামের মৃত মনজুর আলীর ছেলে আলতাফ হোসেন (৬২), নাটোরের লালপুর উপজেলার নওপাড়া গ্রামের ওসমান মণ্ডলের স্ত্রী আকলিমা বেগম (৭০), রাজশাহী মহানগরীর বেলদারপাড়া মহল্লার মৃত ফয়জুল আহমেদের ছেলে জিকরুল হক (৭০) এবং নওগাঁ সদর উপজেলার জগেশ^র কীর্তিপুর গ্রামের মৃত আনন্দ প্রামানিকের ছেলে অনুকুল প্রামানিক (৫০)।

মঙ্গলবার (২৩ জুন) দিবাগত রাতের বিভিন্ন সময় আকলিমা, আলতাফ, নুসরাত ও লিয়াকত মারা যান। আর বুধবার দুপুরে মারা যান অনুকুল প্রামানিক ও জিকরুল হক। এই ছয়জনের মধ্যে শুধু জিকরুল হাসপাতালের ২৯ নম্বর ওয়ার্ডে ছিলেন। বাকি সবার মৃত্যু হয়েছে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ)।

রামেক হাসপাতালের উপপরিচালক ডা. সাইফুল ফেরদৌস জানান, উপসর্গ নিয়ে মারা যাওয়া চারজনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। তারা করোনা আক্রান্ত ছিলেন কিনা তা নমুনা পরীক্ষার পরই বলা যাবে।

কোয়ান্টাম ফাউন্ডেশন স্বাস্থ্যবিধি মেনে মৃত ছয়জনের দাফন করার ব্যবস্থা করছে বলেও জানান হাসপাতালের এই কর্মকর্তা।


  • 3
    Shares

এই বিভাগের আরও খবর পড়ুন

Back to top button