দেশজুড়ে

মির্জাগঞ্জে স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে থানায় মামলা


মোঃ রনি খান, মির্জাগঞ্জ (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি: পটুয়াখালীর মির্জাগঞ্জ উপজেলার মজিদবাড়িয়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক সুমন খান এর বিরুদ্ধে পঞ্চম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে ধর্ষনের চেষ্টার অভিযোগে উঠেছে। শুক্রবার (৮অক্টোবর) রাত সাড়ে ১১ টায় ভুক্তভোগী কিশোরীর মা মোসা: শারমিন বেগম এ ঘটনায় থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের কারেন।

অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, কিশোরীর গ্রামের বাড়ি উপজেলার মজিদবাড়িয়া ইউনিয়নের চালিতাবুনিয়া গ্রামে। সে ভায়াং সরকাররি প্রাথামিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রী। বাড়ি থেকে স্কুল দুরে হওয়ায় কিশোরী স্কুল সংলগ্ন ভয়াং বাজারে তার মেঝ খালার বাসায় থেকে লেখাপড়া করে । অভিযুক্ত সুমন ভুক্তভোগী কিশোরীর ঐ খালার ফুফাত ভাই হওয়ার সুবাদে বাসায় প্রায়ই আসা যাওয়া করত।

ঘটনার সময় সুমন খান ঐ বাসায় এসে কিশোরীকে তার খালা কোথায় জানতে চাইলে সে বলে মামা বাড়ি গেছে। খালা বাসায় না থাকার সুযোগে কিশোরীর মাথার ব্যান্ড টেনে নেয় সুমন। পরে ব্যান্ড চাইতে গেলে সুমন কিশোরীর মুখ চেপে ধরে পরনের কাপড় খুলে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এসময় কিশোরীর ডাক-চিৎকার দিলে
স্থানীয়রা এগিয়ে আসলে সুমন পালিয়ে যায়।

এ বিষয় মির্জাগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মো: আনোয়ার হোসেন তালুকদার বলেন, মামলা রুজু করা হয়েছে। আসামি গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত আছে।

উল্লেখ্য, এর আগেও ২০২০ সালের ৬মে এসএসসি পরিক্ষার্থী এক কিশোরীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগের ভিত্তিতে সুমনকে আটক কারে মির্জাগঞ্জ থানা পুলিশ পরে বিয়ের মুচলেকায় মুক্ত হয়ে ঐ মেয়েকে বিয়ে করে।


এই বিভাগের আরও খবর পড়ুন

Back to top button