শ্রীনগরে মাদ্রাসা ছাত্র খুন

0
115

শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি: শ্রীনগরে সিনিয়র জুনিয়র দ্বন্দ্বের জের ধরে এক মাদ্রাসা ছাত্রকে কুপিয়ে খুন করা হয়েছে। এঘটনায় কুপিয়ে জখম করা হয়েছে আরেক কিশোরকেও। গত বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৭ টার দিকে উপজেলার দেউলভোগ গরুর হাটের ট্রান্সমিটার সংলগ্ন এলাকায় এঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানায়, উপজেলার শহীদ মিনার এলাকার ভারাটিয়া দিনমজুর মো. হাবীবের ছেলে রবিউল (১৮) ও শিশু একাডেমীর কর্মচারী হাবিবের ছেলে আলী হোসেন (১৭) তাদের চেয়ে বয়সে বড় দেউলভোগ বাজারের বাসিন্দা রঙ্গিলার ছেলে সোহেল (২৮) এর সামনে ধুমপাণ করে। এনিয়ে তাদের মধ্যে সিনিয়র জুনিয়র দ্বন্দ শুরু হয়।

বৃহস্পতিবার ইফতারির পর বিষয়টি নিয়ে মিমাংসার চেষ্টা করা হলে ফের সোহেল তার ভাই সুমন, শুভ ও নজরুল ইসলামের ছেলে রাকিবসহ কয়েকজনের সাথে কথা কাটাকাটি শুরু হয়। কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে একজন ধারালো দা দিয়ে রবিউলের ঘারে পেছন দিক থেকে কোপ দিয়ে তাকে মাটিতে ফেলে দেয়। এসময় হামলাকারীরা আলী হোসেনকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে তার পিঠে, হাতে ও বুকে আঘাত করে মারাত্মকভাবে জখম করে। তাদের চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে তাদেরকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়।

সেখান থেকে রবিউলকে ঢাকায় মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষনা করে। রবিউল উপজেলার হাঁসাড়া এলাকার একটি মাদ্রসার ছাত্র। ঘাতকদের মধ্যে সোহেল উপজেলা ভূমি অফিসের নাইট গার্ড হিসাবে কর্মরত।

শ্রীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. হেদায়াতুল ইসলাম ভূঞা জানান, রবিউলের লাশ ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে রয়েছে। এব্যাপারে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।