করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন পুলিশ কনেস্টেবল এনামুল

0
10

রনজিৎ সরকার রাজ : মৃত্যু পুলিশ কনেস্টেবল এনামুল হকের গ্রামের বাড়ি পঞ্চগড় সদর উপজেলার গইছপাড়া গ্রামে।গত মঙ্গলবার রাতে দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে ঢাকা রাজারবাগ পুলিশ হাসপাতালে নেওয়ার পথে আজ বুধবার ( ১০ জুন) তিনি রাস্তায় মৃত্যুবরণ করেন।

বীরগঞ্জ থানা পুলিশ সুত্রে জানা যায়, কনেস্টেবল এনামুল হক গত গতমাসে অসুস্থ্যতাবোধ করেন। পরে তিনি করোনা পরীক্ষা করার জন্য নমুনা দেন। চলতি মাসের গত ২ তারিখে পুলিশ সদস্য এনামুল হকের করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে। ওইদিন রাতেই বীরগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হলে পরেরদিন (৩ জুন) তাকে দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসোলেশনে কয়েকদিন থাকার পর অবস্থার অবনতি হলে গতকাল মঙ্গলবার গভীররাতে এনামুল হককে রাজারবাগ পুলিশ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়।

বুধবার সকালে ঢাকা পৌঁছানোর আগেই রাস্তায় পুলিশ সদস্য এনামুল হকের মৃত্যু হয়।ঢাকা থেকে মৃত পুলিশ সদস্যের লাশ নিয়ে এসে তার গ্রামের বাড়িতে দাফন-কাফন করা হবে বলে জানা যায়।তার মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে দিনাজপুরের পুলিশ সুপার মো. আনোয়ার হোসেন বলেন, ‘বীরগঞ্জ থানায় কর্মরত এনামুল হক নামের এক পুলিশ কনেস্টেবল করোনায় আক্রান্ত হলে দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল।

সেখানে অবস্থার অবনতি হলে গতকাল (মঙ্গলবার) রাতে আমরা তাকে ঢাকা রাজারবাগ পুলিশ হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা করি। কিন্তু হাসপাতালে পৌঁছানোর আগেই তিনি রাস্তায় মৃত্যুবরণ করেন। তিনি করোনা আক্রান্ত ছিলেন, সেই সাথে তিনি হৃদ রোগেও আক্রান্ত ছিলেন। লাশ দাফন-কাফনের জন্য গ্রামের বাড়িতে পাঠানো হবে বলেও জানান তিনি।অন্যদিকে বীরগঞ্জে আরো দুইজন করোনা রোগী সুস্থ হয়েছেন। উল্লেখ্য যে, এ পর্যন্ত মোট ১৯ জনের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১২ জন, ০৬ জন চিকিৎসাধীন আছেন ০১ জন মৃত্যুবরণ করেছেন।